আমরা জানবো, ঝড়-বৃষ্টির সময় কি কি করা উচিত আর কি কি করা উচিত না??? | We will know, what should be done during storm-rain or should be not???

ঝড়-বৃষ্টি বা তুফানের সময় করণীয় ৬ টি সুন্নতি আমল এবং বর্জনীয় ৩ টি কাজ। যথাঃ | Six practicable/due sunnat amal and three exclusionary work during storm-rain. such as:

  1. বৃষ্টি শুরু হলে নিম্নের দুয়াটি পাঠ করা | During rain to recite the following du'a.

                    اللَّهُمَّ صيِّبًا نَافِعَا

(আল্লাহুম্মা ছইয়্যেবান না- ফিয়া-)

অর্থ: হে আল্লাহ! মুষলধারে উপকারী বৃষ্টি বর্ষণ করুন।

★অতিরিক্ত বৃষ্টির ফলে জানমালের ক্ষতির আশংকা দেখা দিলে, নিম্নের দুয়াটি পড়া | If there is fear of loss of life and resources due to excessive rain, to read the following du'a.

                     اللَّهُمَّ حَوَاليۡنَا وَلَا عَلَيۡنَا

(আল্লাহুম্মা হাওয়ালাইনা- ওয়ালা- য়ালাইনা-)

অর্থ: হে আল্লাহ! আমাদের পার্শ্ববর্তী এলাকায় বর্ষণ করুন, আমাদের উপর নয়।

২)বৃষ্টির আগে ঝড়ো হাওয়া দেখলে আল্লাহর গজব নাজিল হচ্ছে কিনা এ ভয়ে ভীত সন্ত্রস্ত হওয়া। রসুলে পাক (সা:) এমন ভয় পেতেন।কাজেই এটি সুন্নত।

🌧(৩) বৃষ্টি শুরু হলে رَحۡمَتً (রহমাতান) বলা সুন্নত।কারন বৃষ্টি আল্লাহর একটি রহমত।

🌦(৪) বৃষ্টির পরে নিচের দুয়াটি পাঠ করা।

                                مُطِرۡنَابِفَضۡلِاللَّهِ وَرَحۡمَتِهِ

(মুত্বিরনা- বিফাদলিল্লা-হি ওয়া রহমাতিহি)

অর্থ: আল্লাহর অনুগ্রহ এবং দয়ায় আমাদের উপর বৃষ্টি বর্ষিত হয়েছে।

(৫)বৃষ্টির কিছু পানি গায়ে লাগানো সুন্নত।

🤲🏼(৬) বৃষ্টির সময় হচ্ছে দুয়া কবুলের সময়গুলোর একটি। তাই এ সময় আল্লাহর দরবারে নিজের চাহিদা অনুযায়ী বেশি বেশি দু'য়া করা।

🌧

যে ৩ টি কাজ আমরা ঝড়-বৃষ্টির সময় করে থাকি, যেগুলো করা নিষেধ। সেগুলো হচ্ছে:



  1. বৃষ্টিকে গালি দেওয়া।
  2. কোন ব্যাক্তি বা গোষ্ঠীর নাফরমানীর কারনে আল্লাহ গজব দিয়েছেন ভাবা।প্রাকৃতিক দূর্যোগ কোনটি আল্লাহ গযব হিসেবে দিয়েছেন তা একমাত্র নবী রাসুলরা জানতেন কারন আল্লাহ তায়ালা তাঁদের জানিয়ে দিতেন।আমাদের সেটি জানার কথা নয়।
  3. আমাদের দেশে অনেক এলাকায় দেখা যায় ঝড় বৃষ্টির সময় আযান দেয়। এটির কোনো শরীয়ত সম্মত ভিত্তি নেই,  তাই এটা বর্জনীয়।


আসুন আমরা সবাই সঠিক সময়ে সঠিক ইবাদতের মাধ্যমে আল্লাহর সন্তুষ্টি কামনা করি।আল্লাহ আল মু-মিনু(নিরাপত্তাদানকারী); আল মাতি-নু(প্রচন্ড শক্তিমান); আল মুজি-বু(দুয়া কবুলকারী) ইন-শা-আল্লাহ আমাদের দু'য়া কবুল করবেন।

তথ্যসূত্রঃ- শায়েখ আহ-মাদুল্লাহ এর লেকচার থেকে সংগৃহীত।



1 Comments

Post a Comment

Previous Post Next Post